আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ভুয়া পরিচয়ে টিকটক ব্যবহার করে প্রতারণার অভিযোগে টিকটক রাজ ওরফে রাকিব নামে এক যুবককে গ্রেফতার …..।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ভুয়া পরিচয়ে টিকটক ব্যবহার করে প্রতারণার অভিযোগে টিকটক রাজ ওরফে রাকিব নামে এক যুবককে গ্রেফতার পুলিশের এলিট ফোর্স র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)। বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও র‌্যাব সদস্য পরিচয়ে টিকটক করে নারীদের ফাঁদে ফেলে অনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনে বাধ্য করতেন তিনি। রাজধানী ঢাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

সোমবার (১৫ নভেম্বর) রাতে গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন র‍্যাবের লিগ্যাল আ্যন্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন। তিনি বলেন, ‌‘আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ভুয়া পরিচয়ে র‍্যাব ও বিজিবির ইউনিফর্ম পরে টিকটক ব্যবহার করে প্রতারণা, নারীদের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন, ব্ল্যাকমেইল ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে টিকটক রাজ ওরফে রাকিবকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এ বিষয়ে মঙ্গলবার কারওয়ান বাজার র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলন করে বিস্তারিত জানানো হয়। তার কাছ থেকে র‍্যাবের ইউনিফর্ম, ভুয়া আইডি কার্ড, মোবাইল ফোন ও বেশ কয়েকটি সিমকার্ড জব্দ করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সে আইনশৃঙ্খলারক্ষী বাহিনীর পরিচয় দিয়ে প্রতারণার কথা স্বীকার করে। বিশ্বাসযোগ্যতা অর্জনে আইনশৃঙ্খলারক্ষী বাহিনীর মতো চুল কাটাসহ পোশাকও পরতো।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নিজেকে বিজিবির একজন ল্যান্স নায়েক পদবীর সদস্য বলে পরিচয় দিতো টিকটক রাজ। এসএসসি পাস টিকটক রাজ এর আগে গার্মেন্টসে চাকরি করতো। সম্প্রতি বগুড়ায় একটি আবাসিক হোটেলের সিকিউরিটি গার্ডের দায়িত্ব পালন করতো সে। সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, প্রতারণার মাধ্যমে টিকটক রাজ চারটি বিয়ে করেছে। কৌশলে নারীদের আপত্তিকর ছবি ধারণ করে আরও শতাধিক নারীকে প্রতারিতও করেছে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*